অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর একটি সহজ পদ্ধতি ও দ্রুত সামনে এগিয়ে যাওয়া

sunny

আমি সৈয়দ মোহাম্মদ আল ফে সানি। শিখতে ভালোবাসি তাই শেখা টাকেই পেশা হিসেবে নিয়েছি। বর্তমানে সার্চ ইঞ্জিন অপ্টিমাইজার ( এস,ই,ও প্রফেসনাল ) তথা ইন্টারনেট মার্কেটার হিসেবে জীবন যাপন করছি। সময়ে সময়ে ব্লগিং এর মাধ্যমে নিজের শিক্ষার বিভিন্ন অংশ গুলো আপনাদের মাঝে তুলে ধরতে পছন্দ করি !
টিউন করেছেন sunny | July 2, 2015 12:52 | পোস্টটি 3,346 বার দেখা হয়েছে

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং ! ইন্টারনেট মার্কেটিং এর অনেকটা অংশ জুড়ে যার প্রভাব। সারা পৃথিবীর অনেকেই আজ অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং কে সফল ক্যারিয়ার হিসেবে বেছে নিয়েছে। হয়তো সেই অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং নিয়েই আপনি আজ নিজের ক্যারিয়ার তৈরি করবেন বলে ভাবছেন। কিন্তু শুরুটা কি দিয়ে করবেন তা নিয়ে হয়তো মনে নানা জল্পনা কল্পনা তথা বিভিন্ন কনফিউশন এবং ভয়! তাহলে আপনার কথা চিন্তা কড়েই আজ আমাড় এই লিখা।

?????????????????????????????????????????????????????????????????????????????

আপনি জানেন কী?

আপণী যেহেতু অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং শুরু কোরতে যাচ্ছেন সেহেতু আপনার সামনে এখন ৩টী রাস্তা খোলা………

  1. অল্প খরচ এবং ধীর গতিতে এগিয়ে যাওয়া!
  2. যথেষ্ট খরচ এবং দ্রুত গতিতে এগিয়ে যাওয়া!
  3. আপনার তৈরি কৃত রাস্তা!

এখন, কোন রাস্তায় আপনি যাবেন এটা নির্ভর করবে আপনি কতোটুকু বিনিয়োগ করবেন, কতোটুকু সময় দিবেন এবং কতোটুকু গতিতে আপনি এগিয়ে যেতে চান তার উপর।

সবাই চায় অল্প খরচ এবং অল্প পরিশ্রমের মাধ্যমে দ্রুত এগিয়ে যেতে। আমি তাদের বলবো , “পরিশ্রম এর সাথে কোন আপোষ চলেনা। সফল হওয়ার প্রথম সূত্রই পরিশ্রমতবে সেই পরিশ্রম কোন পরিশ্রম-ই না যেটা ভুল পথে করা হয়। তাই আপনি যদি সঠিক রাস্তায় আপনার মেধাকে কাজে লাগিয়ে পরিশ্রম করেন তাহলে খরচ এবং ঝুঁকির সাথে আপোষ করে দ্রুত গতিতে এগিয়ে যেতে পারেন।”। এক্ষেত্রে আপনি ৩য় রাস্তা টি বেছে নিতে পারেন যা কিনা সম্পূর্ণই আপনার মেধা এবং পরিশ্রমের সমন্বয়ের তৈরি এক নতুন রাস্তা।

Theres-a-New-Way

এখানে সেই রকমি ৩য় রাস্তায় তৈরি একটি সহজ পদ্ধতির ধাপ গুলো তুলে ধরা হল…

 

১) One-Page Website তৈরি

অনেকেই অ্যাফিলিয়েশন শুরুর প্রথম দিকে বড় ধরনের ওয়েবসাইট তৈরি করে বিভিন্ন কন্টেন্ট দ্বারা পরিপূর্ণ কোরতে থাকে এবং এক সময় হতাশ হয়ে যায়। তারা জানেই না যে ওয়েবসাইটকে সুধু কন্টেন্ট দ্বারা পরিপূর্ণ করলেই কার্য সিদ্ধি হয়ে যায় না, বরঞ্চ তাদের জানতে হবে কিভাবে নিজের সৃজনশীলতা দ্বারা অ্যাফিলিয়েশন থিউরির সমন্বয় ঘটানো যায়।

তাই শুরুর দিকে এই চিন্তা ধারা বাদ রেখে আপনি সুধু একটি ওয়ান-পেজ ওয়েবসাইট (One-Page Website) তৈরির মাধ্যমে কাজ শুরু করে দিতে পারেন। আপনার এই ওয়েবসাইট পেজে মানুষকে সাইন-আপ করার কথা বোলেই কাজ করতে পারেন। তবে সাইন-আপ করানর জন্য অবশ্যই আকর্ষণীয় কোন অফার রাখতে হবে যাতে মানুষ সাইন-আপ করার জন্য উদ্বুদ্ধ হয় (এই বেপারে নিচে আলোচনা আছে)। সাধারণত এই ধরনের ওয়ান-পেজ ওয়েবসাইটকে ইস্কুইযি পেজ (Squeeze Page)বলে। ওয়ান-পেজ ওয়েবসাইটে মানুষকে ২টি অপশন দিতে হয়, আর তা হোল- “Subscribe, or leave”

Manifestation-Miracle---Live-Your-Dreams---Create-Your-Dream-Future-Today

২) সাবস্ক্রাইব করার জন্য আকর্ষণীয় অফার

আগেই বলেছিলাম, আপনার ইস্কুইযি পেজে এমন কিছু অফার রাখতে হবে যাতে করে ভিসিটর উদ্বুদ্ধ হয় সাইন-আপ করার জন্য। আপনি-ই বলেন, যদি মানুষ কে কোন অফারের মাধ্যমে উত্সাহিত করা নাই যায় তাহলে কেন তারা আপনার সাইটে সাইন-আপ অথবা সাবস্ক্রাইব করবে?

ভিসিটর কে উত্সাহিত করার জন্য বিভিন্ন ইনসেন্টিভ রাখতে পারেন। যেমন, ফ্রী ই-বুক, ফ্রী প্রোডাক্ট, এক্সক্লুসিভ ভিডিও অথবা অডিও, ইত্যাদি ।

ইস্কুইযি পেজে আপনার কাজ হোল এমন ভাবে অফার গুলো তৈরি করতে হবে যাতে ভিসিটরের জন্য সেই অফার নেওয়া বাদ্ধতা মূলক হয়ে পরে। অফারের মাধ্যমে ভিসিটর কে জানিয়ে দিন যে সে কিভাবে এখান থেকে উপকৃত হতে যাচ্ছে। এবং কৌতুহল তৈরির জন্য বুলেট পয়েন্ট করে এমন কিছু লিখতে পারেন…

  • Discover the top X things you should never do when XYZ
  • The 7 steps to ABC… no XYZ needed!

teaserbox_1778657

অবশ্যই অফার এর সাথে মিলিয়ে উপযুক্ত ইমেজ যোগ করবেন। যেমন, আপনি যদি ফ্রী ই-বুক অফার করেন তাহলে কোন 3D বই এর ইমেজ দিবেন। এতে করে আপনার অফারটি মানুষের কাছে বেশি গ্রহণযোগ্যতা পাবে।

 

৩) কানেক্ট অটোরেস্পন্ডার

অটোরেস্পন্ডার হচ্ছে অটোম্যাটিক ই-মেইল সার্ভিস। যখন কেও আপনার সাইটের অফার টি নেয়ার জন্য ই-মেইল প্রভাইড করে সাইন-আপ করবে তখন অটোম্যাটিকালি অটোরেস্পন্ডার সেই ই-মেইল আইডি সংরক্ষন করবেন। এবং এতে করে সেই ই-মেইল আইডি তে সাথে সাথে সেই অফার টি প্রভাইড করা হয়ে যায় এবং পরে সেই ই-মেইল আইডি তে বিভিন্ন অফার মেইল করে মার্কেটিং করা যায়।

email-marketing-banner

এই সার্ভিস টি পেতে হলে আপনাকে আপনার সাইটের সাথে একটি অটোরেস্পন্ডার কোম্পানির সাথে কানেক্টেড হতে হবে। বিভিন্ন অটোরেস্পন্ডার সাইট আছে যাদের কাছ থেকে আপনি এই সার্ভিস টি নিতে পারেন। নিচে কয়টি অটোরেস্পন্ডার সাইটের নাম দেওয়া হোল …

 

৪) সোলো এড

এই ধাপে আপনাকে আপনার প্রফিটের জন্য কিছু অর্থ বিনিয়োগ করতে হবে। আপনার ইস্কুইযি পেজের জন্য আপনার ভিসিটর দরকার। আপনার অরগানিক রেসাল্ট এর থেকে বেশি ভিসিটর পাওয়ার জন্য যে সহজ পদ্ধতি টি অবলম্বন করতে পারেন তা হোল, বিভিন্ন সাইটের সাথে কানেক্ট হতে পারেন যাদের প্রচুর পরিমানে সাবস্ক্রাইবার আছে এবং তারা কিছু অর্থের বিনিময়ে তার সাবস্ক্রাইবার দের কাছে আপনার অফার কে প্রমট করার জন্য ই-মেইল পাঠাবেন যার মাধ্যমে আপনি নিদ্রিস্ট সংখ্যক ভিসিটর পাবেন। এটাকেই সোলো এড বলে। বিভিন্ন ডিরেক্টরি এবং ওয়েবসাইট আছেন যারা সোলো এড সার্ভিস টি সেল করে থাকেন। এই রকম সাইট গুলকে আপনার খুজে বের করতে হবে এবং তাদের সাথে কন্টাক করে জানতে হবে যে তারাকি আপনার কাছে সোলো এড প্রভাইড করতে ইচ্ছুক কিনা।

solo_ad_escape_alternative_traffic_sources-560x315

৫) সাবস্ক্রাইবার

সোলো এড প্রভাইডার রা যখন তাদের সাবস্ক্রাইবার দের আপনার সাইটের হয়ে ই-মেইল করবে তখন সেই সব সাবস্ক্রাইবার রা ঐ ই-মেইল এর মাধ্যমে আপনার সাইটে আসবে এবং তাদের যদি আপনার অফার ভালো লাগে তাহলে তারা সাইন-আপ এর মাধ্যমে আপনার সাবস্ক্রাইবার হয়ে যাবে।

360307-1ojgXL1430421873

৬) কমিসন

সোলো এড প্রভাইডারদের মাধ্যমে পাওয়া সাবস্ক্রাইবার রা আপনার সাইটের সাবস্ক্রাইবার হয়ে গেলে আপনার কমিশনের রাস্তা খুলে যাবে। এবং তাদের যদি আপনি লং টাইমের জন্য সাবস্ক্রাইবার করে রাখতে পারেন তাহলে এক-ই সাবস্ক্রাইবার দিয়ে বার বার আয় করতে পারবেন।

clip-art-of-a-happy-orange-businessman-carrying-a-briefcase-and-balancing-on-an-increasing-black-arrow-of-a-graph-through-floating-green-dollar-symbols-on-white-by-3pod-685

৭) উদ্দেশ্যসাধন ও বড় অংকের আয়

আপনি যদি রিজনেবল সাইজ লিস্ট তৈরি করে ফেলতে পারেন এবং কাজ এভাবেই চালিয়ে যান তাহলে একসময় আপনার সাইট টি একটি ট্রাস্টেড সাইটে পরিনত হবে। এবং এতে করে আপনি নতুন নতুন পণ্য লাঞ্চ এবং প্রমটের মাধ্যমে প্রতিনিয়ত বড় রকমের আয় করা শুরু করে দিতে পারেন।

প্রিতিনিওতই মার্কেটে নিত্য নতুন পণ্য আসে এবং প্রমট হয়। এসবের ভিতর থেকে বাছাই করে উপযুক্ত ডিস্কাউন্ট এবং আকর্ষণীয় অফারের মাধ্যমে আপনার সাবস্ক্রাইবার বা নতুন সাবস্ক্রাইবার দের ভিতর পণ্য বিক্রয় করতে পারলেই অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং থেকে ভালো পরিমানে আয় কয়া যায় প্রতিনিয়ত। আবারো বলছি, এটা তখনি সম্ভব যখন আপনার কাছে উপযুক্ত সাবস্ক্রাইবার লিস্ট থাকবে।

c773966bfce16b35916ea059efce0adb

কেন এটা সহজ এবং অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং শুরু করার জন্য উপযুক্ত রাস্তা ?

কারন-

  • এটার জন্য কোন ওয়েব সাইট তৈরি করতে হয়না, সুধু একটা ইস্কুইযি পেজের মাধ্যমেই কাজ করা যায়।
  • এটার জন্য প্রতিনিয়ত কন্টেন্ট এবং নিত্য নতুন আর্টিকেল লিখার কোন দরকার হয় না।
  • এটার জন্য কি-ওয়ার্ড এবং ব্যাক লিঙ্ক নিয়ে তেমন মাথা ঘামাতে হয় না।

 

এটি করার জন্য যা যা লাগবে

  • একটি স্টাইলিশ ইস্কুইযি পেজ
  • কিছু অফার যা মানুষ কে আকর্ষিত করবে
  • টেক্সট / ইমেজ / হেডলাইন যার মাধ্যমে অফার টিকে সাজানো যায়
  • একটি অটোরেস্পন্ডার সার্ভিস
  • ই-মেইল সিকোয়েন্স
  • সোলো এড প্রভাইডার

Doing-okay1

এই রাস্তায় অল্প অর্থ বিনিয়োগ করে বড় রকমের আয় ব্যাক পাওয়া যায়। তবে মনে রাখবেন, সব কিছু কিন্তু আপনার ক্রিএটিভিটির উপর নির্ভর করে। তাই প্রতিনিয়ত নতুন কিছু শিখার মাধ্যমে নিজেকে এবং নিজের মার্কেটিং প্রসেস কে আপগ্রেড করুন এবং যুগের সাথে তাল মিলিয়ে চলুন।

  • Saif Rahman

    Thank U. Very helpful tips.

    • Alfa Sunny

      Thank You for Your Comment !

  • hasan

    hmm there is a good idea about affiliate marketing. very helpful

    • Alfa Sunny

      Thank You for Your Comment !

  • Barua Suranjit

    Sunny bhai may I get your contact no. please.

  • fazlur rahman

    hi sanny. its impressiv i well fowllo it

    • Alfa Sunny

      Thank You For Your Comment